২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, বৃহস্পতিবার
--বিজ্ঞাপন-- Bangla Cars

মধ্যরাতে কুবির হলে ফের গ্যাস লিক, আতঙ্কে শিক্ষার্থীরা

কুবি প্রতিনিধি
spot_img

মধ্যরাতে গ্যাসের পাইপ লিকেজ হয়ে গ্যাস ছড়ানোয় কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) শেখ হাসিনা হলের ছাত্রীদের মাঝে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। এই নিয়ে পরপর দুইবার শেখ হাসিনা হলে গ্যাস পাইপ লিকেজের ঘটনা ঘটে।

এর আগে বিষয়টি জানানো হলেও কার্যকরী কোনো পদক্ষেপ নেয়নি কর্তৃপক্ষ। ফলে দ্বিতীয় দিনেও আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়লে ছাত্রীরা হলের বাইরে চলে আসে। শনিবার মধ্যরাতে এ ঘটনা ঘটে। তবে এ ঘটনায় কোনো হতাহত হয়নি।

জানা গেছে, গতকাল শুক্রবার রাত ১১টার দিকে গ্যাসের তীব্র গন্ধে আগুনের আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে শিক্ষার্থীদের মধ্যে। এসময় তারা হল থেকে থেকে বেরিয়ে চলে আসলে পরবর্তীতে গ্যাসের মূল সংযোগ বন্ধ করে দিলে তারা হলে প্রবেশ করে।

পরবর্তী দিন শনিবার বাখরাবাদ গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানীর কর্মীরা এসে নিরীক্ষা করে সংযোগ ফুটোর কোনো চিহ্ন খুঁজে পায়নি। এরপর আজ রাত সাড়ে ১১টায় আবারও হলে গ্যাসের গন্ধ পেয়ে আতঙ্কে হল থেকে বেরিয়ে যায় তাঁরা। এদিনও মূল সংযোগ বন্ধ করে শিক্ষার্থীদের হলে পাঠিয়ে দেওয়া হয়। রাত ১২ টায় হলে প্রবেশ করে গ্যাসের গন্ধ পেয়ে আবারও আতঙ্কে বাইরে বেরিয়ে আসে তারা।

এর আগে গত ৩১ জানুয়ারি হলের সাধারণ সভায় বিষয়টি জানানো হয়েছিল। তবে কর্তৃপক্ষ কোনো ধরনের ব্যবস্থা নেয়নি।

হলের আবাসিক শিক্ষার্থী সুমাইয়া শিমু বলেন, কর্তৃপক্ষকে জানানোর পরও তারা কার্যকরী কোনো পদক্ষেপ না নিয়ে আমাদের জীবনকে হুমকির দিকে ঠেলে দিচ্ছে। যেকোনো সময় বড় কোনো দুর্ঘটনা ঘটে যেতে পারে। হল প্রশাসন কি এ দায়ভার নেবে?

শেখ হাসিনা হলের প্রাধ্যক্ষ মো. সাহেদুর রহমান বলেন, আজ বাখরাবাদ গ্যাসের কর্মীরা এসে চেক করে গেছে। তারা কোনো ধরনের সমস্যা খুঁজে পায়নি। আগামীকাল এসে প্রতিটি জয়েন্ট চেক করবে তারা। আপাতত মূল সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হয়েছে।

সর্বশেষ নিউজ