১৭ এপ্রিল ২০২৪, বুধবার

জরুরি পরিস্থিতি ছাড়া সকালেই উপস্থিত থাকার নির্দেশ সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাঠপর্যায়ের কর্মকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগের

 

মাঠপর্যায়ের কর্মকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগের ক্ষেত্রে সম্প্রতি অনেক কর্মকর্তাকে যথাসময়ে অফিসকক্ষে উপস্থিত পাওয়া যাচ্ছে না। এ জন্য জনসাধারণ এবং অন্যান্য সংস্থার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রয়োজনীয় সংযোগ স্থাপন অসম্ভব হয়ে পড়ে। তাতে সাধারণ নাগরিকেরা যেমন ক্ষতিগ্রস্ত হন, তেমনি সরকারি কাজের গতিও কমে যায়। এমন বাস্তবতায় মন্ত্রী পরিষদ বিভাগ নতুন করে আদেশ জারি করল।

এতে বলা হয়, জরুরি পরিস্থিতি ছাড়া মাঠপর্যায়ের সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সকাল ৯টা থেকে ৯টা ৪০ মিনিটের মধ্যেই অফিসে থাকতে হবে। এর আগে ২০২১ সালে ও ২০১৯ সালে একই ধরনের নির্দেশনা জারি দিয়েছিল মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

সূত্র জানায়, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে কয়েক দিন আগে এক আদেশে সব জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের এই নির্দেশনার কথা জানানো হয়।

এতে বলা হয়, মাঠপর্যায়ের সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জরুরি পরিস্থিতি ছাড়া সকাল ৯টা থেকে ৯টা ৪০ মিনিট পর্যন্ত অফিসে থাকার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছিল। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে মাঠপর্যায়ের দপ্তরগুলোর কার্যক্রম নিয়মিত তদারকি করা হয়।

এ জন্য সেবাগ্রহণকারী নাগরিকদের সুবিধা এবং সরকারি কর্মকাণ্ডে গতিশীলতা ও সমন্বয় বাড়ানোর জন্য মাঠপর্যায়ের সবাইকে অফিসে অবস্থান করে কার্যক্রম পরিচালনা করতে হবে বলে আদেশে বলা হয়।

মাঠপর্যায়ের কর্মকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগের ক্ষেত্রে সম্প্রতি অনেক কর্মকর্তাকে যথাসময়ে অফিসকক্ষে উপস্থিত পাওয়া যাচ্ছে না। এ জন্য জনসাধারণ এবং অন্যান্য সংস্থার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রয়োজনীয় সংযোগ স্থাপন অসম্ভব হয়ে পড়ে। তাতে সাধারণ নাগরিকেরা যেমন ক্ষতিগ্রস্ত হন, তেমনি সরকারি কাজের গতিও কমে যায়। এমন বাস্তবতায় মন্ত্রী পরিষদ বিভাগ নতুন করে আদেশ জারি করল।

এতে বলা হয়, জরুরি পরিস্থিতি ছাড়া মাঠপর্যায়ের সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সকাল ৯টা থেকে ৯টা ৪০ মিনিটের মধ্যেই অফিসে থাকতে হবে। এর আগে ২০২১ সালে ও ২০১৯ সালে একই ধরনের নির্দেশনা জারি দিয়েছিল মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

সূত্র জানায়, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে কয়েক দিন আগে এক আদেশে সব জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের এই নির্দেশনার কথা জানানো হয়।

এতে বলা হয়, মাঠপর্যায়ের সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জরুরি পরিস্থিতি ছাড়া সকাল ৯টা থেকে ৯টা ৪০ মিনিট পর্যন্ত অফিসে থাকার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছিল। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে মাঠপর্যায়ের দপ্তরগুলোর কার্যক্রম নিয়মিত তদারকি করা হয়। এতে যথা সময়ে কর্মকর্তা কর্মচারীদের অফিসে উপস্থিতি পাওয়া যায়নি।

এ জন্য সেবাগ্রহণকারী নাগরিকদের সুবিধা এবং সরকারি কর্মকাণ্ডে গতিশীলতা ও সমন্বয় বাড়ানোর জন্য মাঠপর্যায়ের সবাইকে অফিসে অবস্থান করে কার্যক্রম পরিচালনা করতে হবে বলে আদেশে বলা হয়।

সর্বশেষ নিউজ