১৭ এপ্রিল ২০২৪, বুধবার

‘মেয়েকে ভাগ্নের সঙ্গে বিয়ে দিও’ চিরকুট লিখে বাবার আত্মহত্যা

ভোলা প্রতিনিধি

ভোলায় মেয়েকে ভাগ্নের সঙ্গে বিয়ে দেওয়ার কথা চিরকুটে লিখে আত্মহত্যা করেছেন মো. খোকন বয়াতি নামে এক জুতা ব্যবসায়ী।

মঙ্গলবার লালমোহন থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. এনায়েত হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। নিহত মো. খোকন বয়াতি উপজেলার কালমা ইউনিয়নের কালমা গ্রামের পঞ্চত আলী বয়াতির ছেলে। তিনি দীর্ঘ কয়েক বছর ধরে ডাওরি বাজারে কালমা সু’গ্যালারি নামে জুতার দোকান চালিয়ে আসছিলেন।

সোমবার রাতে উপজেলার ডাওরি বাজারের কালমা সু’গ্যালারি থেকে তার ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মরদেহ উদ্ধারের সময় এই চিরকুট পায় পুলিশ। কন্যাসন্তানকে উদ্দেশ্য করেই ‘আত্মহত্যার’ আগে মো. খোকন বয়াতি এ চিরকুট লিখেছেন বলে দাবি পুলিশের।

লালমোহন থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. শাহাজাহান বলেন, সোমবার বিকেলে বয়াতি তার ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের সিলিং ফ্যানের সঙ্গে রশি পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। পরে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এ সময় তার দোকান থেকে একটি চিরকুট উদ্ধার করা হয়েছে। চিরকুটে একমাত্র মেয়েকে উদ্দেশ্য করে লিখেছেন, ‘আমার একমাত্র মেয়েটাকে ভাগ্নের সঙ্গে বিয়ে দিও, আমার মৃত্যুর জন্য কেউ দায়ী নয়।’

তিনি আরও জানান, বয়াতি আত্মহত্যা করার সময় কালমা সু’গ্যালারির শাটার নামানো ছিল। তিনি ব্যবসায়িক লোকসান কিংবা পারিবারিক কোনো কারণে আত্মহত্যা করেছেন কিনা সেটা স্পষ্ট নয়।

লালমোহন থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. এনায়েত হোসেন বলেন, নিহত বয়াতির পরিবারের কোনো অভিযোগ নেই। এ কারণে বিনা ময়নাতদন্তে মরদেহ নিয়ে গেছেন স্বজনরা। ইতোমধ্যে এ ঘটনায় থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

সর্বশেষ নিউজ