২১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, বুধবার
--বিজ্ঞাপন-- Bangla Cars

‘কুইক রেন্টালের ভর্তুকির নামে হাজার হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করা হচ্ছে’

নিজস্ব প্রতিবেদক
spot_img

গণমাধ্যমে দেওয়া এক বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‘নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবি আদায় ও বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে যে কোনো ত্যাগ স্বীকারে প্রস্তুত জনগণ।

নির্দলীয় সরকার ছাড়া এ দেশে কোনো নির্বাচন হতে দেওয়া হবে না, জনগণ হতে দেবে না বলেও হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

মির্জা ফখরুল শুক্রবার (৩ মার্চ) গণমাধ্যমে দেয়া এক বিবৃতিতে এসব কথা বলেন।

নিত্যপণ্যের মূল্যবৃদ্ধি, বিদ্যুৎ, গ্যাস, জ্বালানির দাম দফায় দফায় বাড়ানোর প্রতিবাদ, খালেদা জিয়ার মুক্তি, নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের দারি বাস্তবায়নসহ ১০ দফা দাবিতে শনিবার (৪ মার্চ) দেশের সব মহানগরের থানায় থানায় পদযাত্রা কর্মসূচি করবে বিএনপি।

বিবৃতিতে পদযাত্রা সফল করার জন্য সর্বস্তরের নেতাকর্মীসহ জনগণের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানান বিএনপি মহাসচিব।

বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধির ব্যাপারে ফখরুল বলেন, ‘সরকারের সীমাহীন দুর্নীতি ও লুটপাটের কারণে দফায় দফায় গ্যাস-বিদ্যুতের দাম বাড়ানো হচ্ছে। শুধুমাত্র সরকার দলীয় লোকদের পকেট ভারি করতে কয়েকমাসে কয়েক দফা বাড়ানো হয়েছে বিদ্যুতের দাম। কুইক রেন্টালের ভর্তুকির নামে হাজার হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করা হয়েছে।

‘এমনিতেই দ্রব্যমূল্যের সীমাহীন ঊর্ধ্বগতির ফলে সাধারণ মানুষের ত্রাহী অবস্থা। গ্যাস-বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধির ফলে এখন সব জিনিসের দাম আরও বেড়ে যাবে। সাধারণ মানুষের বেঁচে থাকাই কষ্ট হবে। নিশিরাতের ভোটের সরকারের দুর্নীতির কারণে দেশ এখন ধ্বংসের শেষপ্রান্তে’, মন্তব্য করেন বিএনপি মহাসচিব।

তিনি বলেন, বর্তমানে মানুষের ভোটের অধিকার নেই, কথা বলার অধিকার নেই, ভালোভাবে বেঁচে থাকার অধিকারও নেই। হত্যা, গুম, খুন ও মিথ্যা মামলা দিয়ে নিপীড়ন চালিয়ে সরকারের শেষ রক্ষা হবে না। দুঃশাসনের বিরুদ্ধে দেশের মানুষ জেগে উঠেছে। নিত্যপণ্যের দাম স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরিয়ে আনতে ও ভোটের অধিকার আদায়ের আন্দোলনে জনগণ ঐক্যবদ্ধ।

সর্বশেষ নিউজ